প্রাইজবন্ড জেতার উপায় সমুহঃ

প্রাইজবন্ড বাংলাদেশের অর্থনীতিতে মুদ্রাস্ফীতি নিয়ন্ত্রনসহ ক্যাশ প্রবাহ বৃদ্ধিতে ব্যাপক ভুমিকা রাখে। নভেম্বর ২০২১ পর্যন্ত সরকার বাজার থেকে ৬৫০ কোটি টাকা উত্তোলোন করেছে। প্রাইজবন্ড জেতার উপায় নিয়ে অনেক বিশেষজ্ঞ বিভিন্ন ধরনের মতামত দিয়েছেন।

Probability Method:

প্রতি ১০ লাখ প্রাইজবন্ডের মধ্যে বিজয়ী হয় মাত্র ৪৬টি নাম্বার, অন্যভাবে বলতে গেলে প্রতি ২১,৭৩৯টি'র মধ্যে ১টি নাম্বার বা ০.০০৪৬% । প্রমানীত সত্য যে প্রাইজবন্ড যত বেশী সংখ্যক থাকবে তার বিজয়ী হবার সম্ভবনা তত বেড়ে যাবে।

পুরাতন প্রাইজবন্ড ক্রয় করাঃ

পুরাতন প্রাইজবন্ড কেনা নিয়ে কোন মতভেদ নাই। পুরাতন প্রাইজবন্ডের কিছু উপকারীতা আছে, যেমন-

  • পুরাতন প্রাইজবন্ড কেনার পর থেকেই ড্র'র আওতায় থাকে, কিন্তু নতুন প্রাইজবন্ড ড্র'র আওতায় আসতে কেনার পর দুই মাস অপেক্ষা করতে হয়।
  • পুরানো সিরিজের প্রাইজবন্ডের ক্ষেত্রে পূর্ববর্তী দুই বছরের মোট ৮টি ড্র’র সাথে মিলিয়ে দেখার সুযোগ আছে (যদি পূর্ববর্তী বিক্রেতা নাম্বারগুলি না মিলিয়েই বিক্রয় করে থাকে), কিন্তু নতুন সিরিজের ক্ষেত্রে কেবল মাত্র পরবর্তী ড্র’র সাথে মিলিয়ে দেখা যাবে পূর্ববর্তী ড্র’র সাথে মিলিয়ে দেখার সুযোগ নাই।

এক সিরিয়ালে প্রাইজবন্ড কেনাঃ

এক সিরিয়ালে নূন্যতম ১০০টি প্রাইজবন্ড ক্রয় করা। ১০০টির অধিক প্রাইজবন্ড ক্রয় করতে চাইলে এক সিরিয়ালে ১০০টি ক্রয় করার পর কিছু গ্যাপ দিয়ে আবার এক সিরিয়ালে ১০০টি কিনতে হবে এইভাবে চলতে থাকবে।

সর্বোপরি নিয়মিত ড্র রেজাল্ট মিলিয়ে দেখতে হবে।

প্রাইজবন্ড সম্পর্কিত যত আলোচনা